সমাধানযাত্রা অসমাপ্ত রেখেই চলে গেলেন মেয়র 0 41

সমাধানযাত্রা শুরু হলেও অনেক কাজই অসমাপ্ত রেখে না ফেরার দেশে চলে গেলেন মেয়র আনিসুল হক।প্রতিশ্রুতি ছিলো স্বল্প, মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনায় ঢাকাকে পরিচ্ছন্ন, সবুজ, মানবিক শহর হিসেবে গড়ে তোলা। দায়িত্ব নেয়ার পর থেকে একে একে দখলমুক্ত করেছিলেন সাত রাস্তা, গাবতলী বাস টার্মিনাল, বনানীর মোনায়েম খানের বাড়ির সামনের রাস্তাসহ বেশ কয়েকটি এলাকা।দূতাবাসগুলোর সামনের ফুটপাতের ওপর গড়ে তোলা অবৈধ স্থাপনাগুলোকেও ছাড় দেননি তিনি।

নানা প্রতিকূলতার মধ্যেও সাহস করে ঢাকাকে বসবাসযোগ্য করার কাজে হাত দিয়েছিলেন আনিসুল হক। সমাধানযাত্রা শিরোনামে দেয়া ইশতেহারের অনেকটা পূরণও করেছিলেন। উত্তরে ৫৩টি সেকেন্ডারি ট্রান্সফার স্টেশন নির্মাণ করে দৃষ্টির আড়ালে নিয়ে গিয়েছিলেন ময়লা-আবর্জনাকে। রাজধানীবাসীর চাহিদাকে বিবেচনায় নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোতে ১১টি আধুনিক গণশৌচাগার নির্মাণ করেছেন।

শক্ত হাতে সরিয়েছেন বিলবোর্ড। দুর্নীতি কমাতে চালু করেছেন ই-টেন্ডারিং। তবে দীর্ঘদিন ধরে চালক-মালিকসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা চালিয়ে গেলেও গণপরিবহণ ব্যবস্থার উন্নয়নের উদ্যোগকে বাস্তবে রূপ দিয়ে যেতে পারেননি তিনি।

এদিকে কাজগুলো শেষ করা হলে ঢাকা উত্তরের চেহারা বদলে যাবে বলে মনে করেন নগর বিশেষজ্ঞরা। তবে এজন্য বেছে নিতে হবে আনিসুল হকের যোগ্য উত্তরসূরিকে। তবে নগর ব্যবস্থায় পরিবর্তন আনতে প্রয়াত মেয়রের অসমাপ্ত কাজগুলোকেও শেষ করার পরামর্শ দিলেন তারা। তবে স্বপ্নদ্রষ্টার স্বপ্ন পূরণ হলে স্বস্তি পাবেন ঢাকাবাসী। আর শান্তি পাবে আনিসুল হকের বিদেহী আত্মা।

Previous ArticleNext Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Most Popular Topics

Editor Picks